চাচা শ্বশুরের ধর্ষণে প্রবাসীর স্ত্রী অন্তঃসত্ত্বা

ফেনীর সোনাগাজী উপজেলায় চাচার বিরুদ্ধে প্রবাসী ভাতিজার স্ত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এতে ওই গৃহবধূ পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছেন। এ ঘটনায় শুক্রবার (২২ নভেম্বর) সন্ধ্যায় চাচা শ্বশুর শফি উল্লাহর বিরুদ্ধে সোনাগাজী মডেল থানায় ধর্ষণ মামলা করেছেন ওই গৃহবধূ।

অভিযুক্ত শফি উল্লাহ উপজেলার সদর ইউপির ছাড়াইতকান্দি গ্রামের বাসিন্দা।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) এ ঘটনায় ছাড়াইতকান্দি গ্রামে একটি সালিশ বৈঠক হয়। সেই বৈঠকে সবার উপস্থিতিতে ওই প্রবাসীর স্ত্রী জানান, তার স্বামী দুই বছর ধরে বিদেশে আছেন। এ সুযোগে নানা প্রলোভন দেখিয়ে শফি উল্লাহ তার সঙ্গে অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তোলার চেষ্টা করেন। এতে সাড়া না পেয়ে একদিন দুপুরে তাকে ধর্ষণ করেন। ইতোমধ্যে তিনি পাঁচ মাসের মাসের অন্তঃসত্ত্বা। বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর সালিশ বৈঠক থেকে তাকে আইনের আশ্রয় নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করে শফি উল্লাহ বলেন, ওই নারীর পরিবারের সঙ্গে তার জমি নিয়ে বিরোধ থাকায় মিথ্যা অভিযোগ তুলেছে।

সোনাগাজী মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মঈন উদ্দিন আহমেদ জানান, শুক্রবার বিকেলে ওই গৃহবধূ মামলা দায়েরের পর আসামিকে গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে। মামলা হওয়ার খবর পেয়ে অভিযুক্ত শফি উল্লাহ বাড়ি থেকে পালিয়ে গেছেন।